ভুলেও যে ৫টি ফল ডায়াবেটিস রোগীরা খাবেন না - দেখে নিন ফল গুলা

ডায়াবেটিস রোগ সম্পর্কে অনেকে অনেক কিছু জানি।কেউ বলে এটা খাবেন, আবার কেউ বলে এটা খাবেন না,এই সব কথা একজন ডায়াবেটিস রোগীকে প্রতিদিন শুনতে হয়।

আমরা কি  সবাই জানি যে ডায়াবেটিস কেন কি কারনে হয়? চলুন জানা যাক ডায়াবেটিস একটি গুরুতর দীর্ঘমেয়াদি অবস্থা। এটি তখনি ঘটে যখন রক্তের গ্লুকোজের মাত্রা স্বাভাবিকের চেয়ে বেশি থাকে,ওই সময়ে শরীরে যথেষ্ট পরিমানে ইনসুলিন  উৎপাদন করে না।ঠিক এই সময়ে ডায়াবেটিস লক্ষণ প্রকাশ পায়।

আমাদের এটা ভাবার কারন নেই যে মিষ্টি খেলেই ডায়াবেটিস হবে। কিন্তু একসাথে অনেক বেশি পরিমানে মিষ্টি খেলে ইনসুলিন এর পরিমান বেড়ে যায় তার কারনে ডায়াবেটিস দেখা দেয়। তাই একসাথে বেশি মিষ্টি খাওয়া যাবে না।

বেশি পরিমানে মিষ্টি খেলে ডায়াবেটিস এর লক্ষণ দেখা দেয়। এই ব্লগের মাধমে আপনি জানতে পারবেন যে কিছু মিষ্টি জাতীয় ফল আছে যে গুলা খেলে ডায়াবেটিস বেড়ে যায় এই ব্লগটি ভালভাবে পড়লে এই ফলগুলা সম্পর্কে ভালো ভাবে জানতে পারবেন, কেন এই ফলগুলা বেশি পরিমানে খেতে পারবে না একজন ডায়াবেটিস রোগী।

 আসসালামুআলাইকুম। আশা করি  আপনারা সবাই ভালো আছেন, আমিও আপনাদের দোয়াতে ভালোই আছি। এই রকম আরো গুরুত্বপূর্ণ তথ্য জানতে Obogoto.Com এর সাথেই থাকুন

আমরা অনেকে জানি,যে ফল আমাদের জন্য অনেক উপকারি।কিন্তু আমরা অনেকে জানি না যে এই ফল ডায়াবেটিস রোগীর জন্য হুমকিস্বরূপ  হতে পারে। একটু অবাক হচ্ছেন তাই না! চলুন কারন টা জেনে নেওয়া যাক।

আম আমাদের  অনেকের প্রিয় একটা ফল  কিন্তু যারা ডায়াবেটিস রোগী  আছেন তাঁদের জন্য এই ফল টা হুমকিস্বরূপ হতে পারে কারন এই আম যখন পাকে তখন মিষ্টি হয় আর এই মিষ্টি এর কারনে একজন ডায়াবেটিস রোগী এর জন্য বিপদ হতে পারে, দেখা গেছে যে প্রতি ১০০ গ্রাম আম এ ১৪ গ্রাম করে চিনি থাকে, যা একজন ডায়াবেটিস রোগীর রক্তে শর্করার ভারসাম্যকে আরো খারাপ করতে পারে।তাই রোগীকে এই ফল বেশি না খাওয়াই ভাল ।

ছবেদা অনেক মিষ্টি একটা ফল। অনেকে এই ফল টা পছন্দ করে । কিন্তু ডায়াবেটিস রোগিরা এই ফল টা পছন্দ করলেও, তারা এটা বেশি পরিমান খেতে পারবে না কারন প্রতি ১০০ গ্রাম ছবেদা তে ৭ গ্রাম চিনি থাকে, যার কারনে একজন ডায়াবেটিস রোগীরা এটা বেশি পরিমানে না খাওয়া ভালো ।
তরমুজ সবার কাছে  অনেকে প্রিয় একটা ফল । পাকা তরমুজ খেতে সবাই অনেক পছন্দ করে । গরমকালে তো এই ফল টা না হলে অনেকের চলে না । কিন্তু ডায়াবেটিস রোগীদের খারাপ খবর হল তারা এই ফল টা বেশি পরিমানে খেতে পারবে না । কারন এই ফলটা মিষ্টি জাতীয় ।
কলা হল একটা পুষ্টিকর ফল। এই ফলে থাকে পটাসিয়াম, যা রক্তচাপ কমাতে সাহায্য করে কিডনি এর জন্য অনেক উপকারি ।  কিন্তু এই ফলে কার্বোহাইড্রেট এর পরিমান অনেক বেশি ,যার কারনে রক্তে শর্করার এর পরিমান অনেক বেশি হয়ে যায়, যার ফলে ডায়াবেটিস অনেক গুনে বেড়ে যায় তাই এই ফল টা বেশি পরিমানে না খাওয়া ভাল।

পুষ্টিগুনে ভরভুর হল আনারস।এটা অনেক সুস্বাদু একটা ফল।কিন্তু এই ফলে অনেক বেশি চিনি থাকে,যার কারনে এই ফল বেশি পরিমানে না খাওয়া ভাল ডায়াবেটিস রোগীরা বেশি পরিমানে খেলে ডায়াবেটিস এর মাত্রা বেড়ে যেতে পারে ।

ডায়াবেটিস অনেক খারাপ একটা রোগ। ধীরে ধীরে এর কারনে হার্ট অ্যাট্ক হতে পারে , আবার অন্ধ হতে পারে,কিডনি নষ্ট হতে পারে। তাই আমরা ডায়াবেটিস রোগ টাকে ভয় না পেয়ে এই থেকে মুক্তি পাবার জন্য চেষ্টা করতে হবে।উপরে দেওয়া ফলগুলা বর্জন করতে পারলে ও এই রোগ থেকে অনেকটা ভালো থাকবেন ইনশাল্লাহ

ব্লগটি পড়ার জন্য অনেক ধন্যবাদ।ব্লগটি বেশি বেশি করে শেয়ার করবেন যার ফলে অনেকে এই বিষয় টা সম্পর্কে জানতে পারবে।
























Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url