জেনে নিন - হিমোগ্লোবিন বাড়বে যা যা খেলে।

 হিমোগ্লোবিন  একটি অক্সিজেন লৌহসমৃদ্ধ মেটালোপ্রেটিন যা মেরুদন্ডী প্রানৗদের লৌহিত কনিকা যা কিছু অমেরুদন্ডী প্রানীর কলায় দেখতে পাওয়া যায়।যারা স্তুনপায়ি প্রানী আছে তাঁদের ক্ষেত্রে লোহিত রক্তকনিকার শু্ক্ক ওজনের ৯৬-৯৭%  দেখতে পাওয়া যায়, এবং প্রোটিন অংশ জলসহ মোট ওজনের ৩৫%। আমাদের ফুসফুস হতে অক্সিজেন দেহের সব জায়গায় নিয়ে যায় হিমোগ্লোবিন । হিমোগ্লোবিন গ্যাস পরিবাহনের অনেক অবদান রাখে।হিমোগ্লোবিন কোষকলার co2 পরিবহণ করে নিয়ে যায় আমাদের ফুসফুসে।

আমাদের রক্তে হিমোগ্লোবিনের মাএা কমে গেলে আমাদের অনেক সমস্যা দেখা দিতে পারে। তার মধ্যে যেমন দুর্বলতা, ক্লান্তি মাথাব্যাথা ,শ্বাসকষ্ট, ঝিম ধরা সমস্যা দেখা দিতে পারে। আমাদের রক্তে যদি হিমোগ্লোবিনের মাএা অনেক কমে যায় তাহলে রক্তসল্পতা বা এর থেকে বেশি ও মারাত্মক সমস্যা দেখা দিতে পারে ।

এখন দেখে নিন কোন কোন খাবার খেলে রক্ত হিমোগ্লোবিনের পরিমান বাড়বে। আপনি যদি এই ব্লগটা পুরাপুরি ভাল করে পড়েন। তাহলে আপনি জানতে পারবেন যে, কোন কোন খাবারের মাধ্যমে আপনি আপনার দেহে হিমোগ্লোবিনের পরিমান বাড়াতে পারেন।  

 আসসালামুআলাইকুম। আশা করি  আপনারা সবাই ভালো আছেন, আমিও আপনাদের দোয়াতে ভালোই আছি। এই রকম আরো গুরুত্বপূর্ণ তথ্য জানতে Obogoto.Com এর সাথেই থাকুন ।




হিমোগ্লোবিন বাড়ানোর জন্য শাকসবজি অনেক গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা রাখে।কারন এইগুলি হিমোগ্লোবিনের আয়রন পুরণ করতে অনেক সাহায্য করে। শাকসবজি গুলা বিশেষ করে ফোলেট, ভিটামিন এ  এবং সি, ক্যালসিয়াম,প্রোটিন ইত্যাদি খনিজে ভরভুর। প্রতিদিন নিয়মিত ভাবে শাকসবজি খেলে হিমোগ্লোবিনের পরিমাণ অনেক বেড়ে যায়।

নিচে দেওয়া শাকসবজি গুলা নিয়মিত খেলে হিমোগ্লোবিনের  পরিমান বাড়বে:
  • কলার্ড গ্রীন ভেজিটেবলঃব্রোকলি,ক্যালিফ্লাওয়ার,কেল,বেগুন ইত্যাদি আয়রনের ভালো উৎস প্রদান করে। 
  • পালং শাকঃ পালংশাক আয়রন,ফোলেট এবং ভিটামিন সি, এবং আগিনিক সমৃদ্ধ হিমোগ্লোবিন বাড়াতে অনেক সাহায্য করে।
  • লেটূুস ঃলেটূুস হিমোগ্লোবিন বাড়ানোর জন্য একটি উপযুক্ত সবজি। এতে আছে ফোলেট ,আয়রন, ভিটামিন এ ,এবং ‍সি ।
  • কলমি শাক ঃ কলমি শাকে আছে অনেক পরিমানে ফোলেট, ভিটামিন সি,যার কারনে হিমোগ্লোবিন বাড়াতে অনেক সাহায্য করে।
শাকসবজি এবং অন্যান্য খাবারের মধ্যে সমন্বয় করে খেতে হয়। যাতে হিমোগ্লোবিন স্তর আর বাড়ে সে জন্য আমাদের উচিত যে প্রতিদিন খাবারের তালিকাই শাক সবজি খাওয়া।
  


 সামুদ্রিক মাছ হিমোগ্লোবিন বাড়াতে পারে কারন এতে আছে প্রোটিন,ভিটামিন বি-১২,আয়রন এবং ওমেগা-৩ ফ্যাটি এর সমৃদ্ধ উৎস প্রদান করে।সামুদ্রিক মাছ হিমোগ্লোবিন বাড়ানোর সাথে সাথে আয়রন বৃদ্ধি করতেও সাহায্য করে।

নিচে কিছু সামুদ্রিক মাছের কথা উল্লেখ করা হল। যেগুলা হিমোগ্লোবিন বাড়াতে  অনেক সাহায্য করবে ।

  • সালমনঃ সালমন একটি সামুদ্রিক মাছে যাতে হিমোগ্লোবিন বাড়াতে অনেক বেশি পরিনামে সাহায্য করে।এতে আছে আয়রন ,প্রোটিন,ভিটামিন বি-১২।
  • টুনাঃটুনা সামুদ্রিক একটি জনপ্রিয় মাছ। এটি আমাদের শরিরে হিমোগ্লোবিন বাড়াতে  অনেক বেশি পরিনামে সাহায্য করে। কারন এতে আছে আয়রন,প্রোটিন।
  • সার্দিনঃসার্দিন একটি ছোট সামুদ্রিক মাছ।এই মাছে কিছু উপাদান আছে যাতে হিমোগ্লোবিন বাড়াতে অনেক সাহায্য করে। যেমন, ভিটামিন বি-১২ যা আয়রনের অনেক বড় একটি উৎস। 
  • হ্যারিঙঃ এই মাছে অনেক বেশি পরিমানে ভিটামিন বি-১২ আছে।যাতে হিমোগ্লোবিন বাড়াতে অনেক সাহায্য করে।
আমাদের শরিরে হিমোগ্লোবিন বাড়াতে  সামুদ্রিক মাছ অনেক বড় ভুমিকা রাখে।তাই আমাদের দরকার প্রতিদিন খাবারের তালিকাই সামুদ্রিক মাছ রাখা।

বাদাম হিমোগ্লোবিন বাড়ানোর জন্য উপকারি একটি খাবার।যাতে আছে আয়রন,ভিটামিন বি-১২,ফোলেট,এবং বি-৬ যা হিমোগ্লোবিন বাড়াতে অনেক গুরুত্বপৃণ ভুমিকা পালন করে।


আসাকরি এই ব্লগের মাধমে আপনি কি কি খেলে হিমোগ্লোবিন বাড়াতে পারবে সেই সব খাবার গুলা সম্পর্কে জানতে পেরেছেন।
ব্লগটা ভালো লাগলে বেশি বেশি করে আপনার বন্ধুদের কাছে শেয়ার করবেন। ধন্যবাদ।























Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url